অধিকাংশ বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আইন মেনে চলছে না: শিক্ষামন্ত্রী

শিক্ষাঙ্গন

স্টাফ রিপোর্টার | ২৫ আগস্ট ২০১৭, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ৪:৩১
শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, অধিকাংশ বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আইন মেনে চলছে না। হাজার হাজার শিক্ষার্থীর ভবিষ্যৎ জড়িয়ে থাকার কারণে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো বন্ধও করে দিতে পারছি না। আজ শুক্রবার দু’দিনব্যাপী ‘ইনোভেটিভ টিচিং এন্ড লার্নিং এক্সপো ২০১৭’ এর উদ্ভোধন শেষে এসব কথা বলেন তিনি। ড্যাফোডিল এডুকেশন নেটওয়ার্ক ও বৃটিশ কাউন্সিলের যৌথ উদ্যোগে ড্যাফোডিল টাওয়ারে অনুষ্ঠানটির আয়োজন করে। মন্ত্রী বলেন, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় মানেই লাভজনক প্রতিষ্ঠান নয়। লাভের আশায় নয় সম্মানের জন্য শিক্ষানুরাগী বিত্তবানদের এগিয়ে আসতে হবে।
বাংলাদেশ চিরকাল জ্ঞান ও প্রযুক্তি আমদানি করবে না। এমন এক সময় আসবে আমরা বিদেশে জ্ঞাণ ও প্রযুক্তি রপ্তানি করবো। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ড্যাফোডিল ফ্যামিলীর চেয়ারম্যানের সবুর খান। আরও উপস্থিত ছিলেন এনসিসি এডুকেশন, ইউকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এলান নরটন, বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ড. এম এ মান্নান, ইসলামিক ইউনিভার্সিটি অফ টেকনোলজির ভিসি ড. মুনাজ আহমেদ নুর, ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশাল ইউনিভার্সিটির ভিসি ড. ইউসুফ এম ইসলাম। সঞ্চালনা করেন সৈয়দ মিজানুর রহমান। সভাপতির বক্তব্যে ড্যাফোডিল ফ্যামিলীর চেয়ারম্যান সবুর খান বলেন, এই এক্সপো আগামীতে দেশব্যাপী ছড়িয়ে দেবার উদ্যোগ হাতে নেয়া হবে এবং শিক্ষার্থীরা যখন এর সুফল পেতে শুরু করবে তখনই আমারা স্বার্থক হব। শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ ইনোভেটিভ টিচিং এক্সপোর ১ম এবং ২য় স্থান অর্জনকারীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। ৫৮ টি প্রজেক্টের মাঝে প্রথম স্থান অর্জন করেন গোপালগঞ্জ জেলার ডালনিইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা লতিফা আক্তার শিউলি এবং ২য় স্থান অর্জন করেন বাংলাদেশ কারিকুলাম শিক্ষাবোর্ডের বিশেষজ্ঞ ড. মো. শাহ আলম মজুমদার।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

sak

২০১৭-০৮-২৫ ০৭:০৯:৩২

বিশ্ববিদ্যালয়গুলো বন্ধ করার দরকার নাই। প্রথমে দুর্নীতিবাজ দুচারটা উদ্দগতাদের ধরুন, সব এমনিতেই থিক হয়ে যাবে।

আপনার মতামত দিন

আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষণের দাবি

এখনও আসছে রোহিঙ্গারা, সমঝোতা নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া

৯০ টাকা ছাড়ালো পিয়াজের কেজি

বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি মামুলি ব্যাপার

‘মড়ার উপর খাঁড়ার ঘা’

চিরঘুমে লোকসংগীতের মহীরুহ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বন্যার ক্ষতি পোষাতে দরকার ১০০ কোটি টাকা

জিম্বাবুয়ের নতুন প্রেসিডেন্টের শপথ

দুই দলেই হেভিওয়েট প্রার্থী

দরিদ্রদের জন্য বিচারের বাণী নীরবে কাঁদে

৭ই মার্চ ভাষণের স্বীকৃতিতে দেশব্যাপী শোভাযাত্রা আজ

সম্মতিপত্র প্রকাশের দাবি বিএনপির

ঘরে ঘুরে দাঁড়ালো চিটাগং

মিশরে মসজিদে জঙ্গি হামলা, নিহত কমপক্ষে ২৩০

‘শেষ মুহূর্তে হলে সরকার সমঝোতায় আসবে’

রবি-সোমবার সব সরকারি কলেজে কর্মবিরতি