সিসিডিএম-ই জানে না ঢাকা লীগের ভাগ্য

স্পোর্টস রিপোর্টার

খেলা ৩ আগস্ট ২০২০, সোমবার



করোনা ভাইরাসের কারণে স্থগিত রয়েছে ঢাকা প্রিমিয়ার লীগের ২০১৯-২০২০ আসর। গত মার্চে এক রাউন্ড হওয়ার পর লীগ আর মাঠে গড়ায়নি। কয়েক দফায় লীগ শুরুর কথা শোনা গেলেও শেষ পর্যন্ত তা হয়নি। এবার জোর গুঞ্জন ঈদুল আযহার পর  মাঠে গড়াবে ঢাকা লীগ। তবে করোনা পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি। যে কারণে লীগ পুনরায় শুরু নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নিতে ব্যর্থ ক্রিকেট কমিটি অব ঢাকা   মেট্রোপলিস (সিসিডিএম)। লীগ পরিচালনাকারী সিসিডিএম আসর আয়োজনের সব দায়িত্ব ছেড়ে দিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট  বোর্ডের (বিসিবি) ওপর। ঈদ শেষ হলেও সিসিডিএম জানে না লীগের ভাগ্যে কী আছে! এ বিষয়ে সিসিডিএম-এর সদস্য সচিব আলী হোসেন দৈনিক মানবজমিনকে স্পষ্ট কোনো উত্তর দিতে পারেননি।
তিনি বলেন, ‘আসলে লীগ নিয়ে সিসিডিএম কোনো সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি। আমরা লীগের ভাগ্য ছেড়ে দিয়েছি বিসিবির হাতে। বোর্ড সভাতেই সিদ্ধান্ত হবে এই মৌসুমের লীগ মাঠে গড়াবে কিনা। আমরা সিসিডিএম  বোর্ডের সিদ্ধান্তের দিকেই তাকিয়ে আছি।’
অন্যদিকে বোর্ডের একটি সূত্র লীগ হবে বলেই দাবি করেছে। জানা গেছে পরিস্থিতি ভালো হলে ছোট পরিসরে হলেও ঢাকা লীগ মাঠে শুরু করতে চায় বিসিবি। অবশ্য লীগ আয়োজনের প্রয়োজনটা বিসিবিরই বেশি। কারণ এই বছর লীগ না হলে তার প্রভাব পড়বে বিসিবির নির্বাচনে। কারণ প্রথম বিভাগ থেকে উঠে এসেছে আরো ২টি দল। বিসিবির নির্বাচনে কাউন্সিলর হয় ১২টি ক্লাব থেকে। সেই ক্ষেত্রে এ বিছর লীগ না হলে ১৪ টি ক্লাব থেকে কাউন্সিল দেয়া সম্ভব নয়। বদলাতে হবে গঠনতন্ত্র। তাই লীগ আয়োজনের বিকল্প নেই বিসিবির। এছাড়াও ক্রিকেটারদের জোরালো দাবি যেভাবেই হোক যেন লীগ ফের শুরু করা হয়। কারণ এর সঙ্গে জড়িত তাদের সারা বছরের রুটি রুজি। অবশ্য লীগ না হওয়ার সম্ভাবনার কথা উড়িয়ে দিয়েছেন আলী হোসেন। তিনি বলেন, ‘লীগ হবে না এমনটা বলা হয়নি। আমরা বলেছি লীগ কিভাবে হবে বা কখন হবে সেটি বিসিবি সিদ্ধান্ত নিবে, সিসিডিএম নয়। কারণ দেশের করোনা পরিস্থিতির ওপর সরকারের নিদের্শনা মেনে বিসিবিই মাঠে ক্রিকেট ফেরাবে। সেই ক্ষেত্রে লীগ আয়োজনের সুযোগ থাকলে সেটি বিসিবিই দেখবে। আমরা শুধু নিদের্শ পালন করবো। তাই সিসিডিএম বিসিবির সিদ্ধান্ত ছাড়া বলতে পারছে না লীগ আসলে কবে হবে।’
লীগ মাঠে না গড়ালেও ক্রিকেটারদের দাবি ছিল ৫০ ভাগ পারিশ্রমিক পরিশোধের। বেশির ভাগ ক্লাব ক্রিকেটারদের দাবি অনেকটাই পূরণ করেছে। তবে একমাত্র ব্রাদার্স ইউনিয়নই এখন পর্যন্ত ১ জন ছাড়া কোনো ক্রিকেটারের পারিশ্রমিক পরিশোধ করেনি। সিসিডিএম চেয়ারম্যান ও বিসিবি পরিচালক কাজী ইনাম আহমেদ দায়িত্ব নিলেও ঈদের আগে পাওনা পরিশোধ করেনি ব্রাদার্স। এ বিষয়ে সদস্য সচিব আলী হোসেন বলেন, ‘ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক ও পাওনা টাকার বিষয়টি আমাদের সিসিডিএম চেয়ারম্যান দেখছেন। তিনিই দায়িত্ব নিয়েছেন। যতটা জানি কথা বলেছেন ব্রাদার্সের অফিসিয়ালদের সঙ্গেও। তাই আমি কিছু বলতে পারছি না। আমাদের চেয়ারম্যানই সিদ্ধান্ত নিবেন পরিবর্তী করণীয়। অবশ্যই ক্লাবগুলোকে আমাদের কাছে জবাব দিতে হবে। আমরা সেই অনুসারে ব্যবস্থা নিবো।’

আপনার মতামত দিন

খেলা অন্যান্য খবর

টিভিতে আজ যা দেখবেন

১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

ভেন্যুর অভাবে ধুঁকছে রোয়িং

১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

মামলায় জিতলেন লিওনেল মেসি

১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

সিরি আ শুরু আজ

পিরলোর ‘জিদান’ হওয়ার চ্যালেঞ্জ

১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

এ বছর হচ্ছে না সাফের কোনো প্রতিযোগিতা

১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের এশিয়া অঞ্চলের খেলা আগেই পিছিয়েছে। দু’দফা পেছানোর পর বাতিল করা হয়েছে এএফসি ...



খেলা সর্বাধিক পঠিত