যুক্তরাষ্ট্রে ন্যাচারালাইজেশন আবেদনে ফি বাড়ছে ৫০০ ডলার

মানবজমিন ডেস্ক

বিশ্বজমিন ১ আগস্ট ২০২০, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:০২

বেশ কিছু ইমিগ্রেশন এবং ওয়ার্ক আবেদনের ক্ষেত্রে নাটকীয়ভাবে ফি বৃদ্ধি করছে যুক্তরাষ্ট্র। শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের সিটিজেনশিপ এন্ড ইমিগ্রেশন সার্ভিসেস (ইউএসসিআইএস) এ ঘোষণা দিয়েছে। এ অনুযায়ী, আশ্রয় প্রার্থনা বা এসাইলাম আবেদনের ক্ষেত্রে ন্যাচারালাইজেশন এপ্লিকেশনের ফি প্রথমবারের মতো এক লাফে ৫০০ ডলার বাড়িয়ে দেয়া হচ্ছে। অনলাইন ফক্স ১১ এ খবর দিয়েছে। এতে বলা হয়েছে, অনলাইনে ন্যাচারালাইজেশন ফি এর আগে ছিল ৬৪০ ডলার। তা শতকরা ৮৩ ভাগ বৃদ্ধি করে ১১৭০ ডলার করা হয়েছে। এর পক্ষে যুক্তি দিয়েছে ইউএসসিআইএস। তারা বলেছে, আবেদনের পূর্ণাঙ্গ প্রক্রিয়াকরণে ব্যবহৃত হবে নতুন ন্যাচারালাইজেশন ফি।
তবে এ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে কংগ্রস। ফি মওকুফ এবং ন্যাচারালাইজেশন ফি কমিয়ে আনার পরিকল্পনা বাদ দেয়ার দিকে অগ্রসর হয় ইউএসসিআইএস। এতে আরো বলা হয়, আশ্রয়প্রার্থীদের ফি দিতে হবে ৫০ ডলার। আশ্রয় প্রার্থনার ক্ষেত্রে অভিবাসীদের জন্য ফি নির্ধারণ করেছে এর আগে অস্ট্রেলিয়া, ইরান ও ফিজি। তার সঙ্গে এখন যুক্ত হলো যুক্তরাষ্ট্র। এমপ্লয়মেন্ট অথরাইজেশন এবং গাইনি বিষয়ক রেকর্ডের মতো অন্য বিভিন্ন সেবায়ও ফি বৃদ্ধি পাবে। উল্লেখ্য, আবেদনকারীদের ফি থেকে ইউএসসিআইএস-এর শতকরা প্রায় ৯৭ ভাগ বাজেট আসে। এমনটা সরকারের অন্য বেশির ভাগ এজেন্সির ক্ষেত্রে ঘটে না। এ বিষয়ে পর্যালোচনা শেষে অভিবাসন বিষয়ক এজেন্সি বলেছে, বর্তমানে যে ফি নির্ধারণ করা আছে, তাতে সেবার বিনিময় বা খরচ ধরা হয় নি। নতুন বর্ধিত ফির নিয়ম কার্যকর হবে আগামী ২রা অক্টোবর থেকে।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Banglar Manush

২০২০-০৮-০১ ২১:৫৯:৫৫

It's not "Neutralization" but it's "Naturalization".

jonogon

২০২০-০৮-০১ ২১:৪০:৩৬

শব্দটা নিউট্রালাইজেশন না, ন্যাচারালাইযেইশন (Naturalization)

আপনার মতামত দিন

বিশ্বজমিন অন্যান্য খবর

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথম

কে এই কমলা হ্যারিস

১২ আগস্ট ২০২০



বিশ্বজমিন সর্বাধিক পঠিত



গ্লোবাল টাইমসে চীনা রাষ্ট্রদূতের নিবন্ধ

চীন-বাংলাদেশ নতুন অধ্যায়ের সূচনা

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথম

কে এই কমলা হ্যারিস