বেলজিয়ামে গবেষণার জন্য ডাক পাওয়া রাইসা এখন ফল বিক্রি করেন ইন্দোরে

অনলাইন ২৭ জুলাই ২০২০, সোমবার, ১২:৩৬

প্রাক্তন পিএইচডি গবেষক রাইসা আনসারি। বেলজিয়ামেও ডাক পেয়েছিলেন একটি গবেষণায় যোগ দেয়ার জন্য। কিন্তু হায় বিধাতা! ইন্দোরের বাজারে এখন তাঁকে ফল বিক্রি করতে হয়। তাও ক্রেতার আকাল। বাড়িতে ২৫ জন সদস্য। কাকে কীভাবে খাওয়াবেন তিনি। লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়ে একটি ভিডিওতে তিনি সরকারের দিকে আঙুল তোলেন। তখনও কেউ চিনতেন না রাইসাকে।
একজন ফল বিক্রেতাকে ঝরঝরে ইংরেজিতে কথা বলতে দেখে গোটা দেশ অবাক। সেখানেই তিনি নিজের ডিগ্রির কথা মানুষকে জানান। তারপরেই সেই ভিডিও ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। এই ঘটনাটি ঘটে গত সপ্তাহে। সম্প্রতি তাঁর বিষয়ে আরও তথ্য সামনে আসায় চমকে গিয়েছে দেশ। বেলজিয়ামে গবেষণায় ডাক পেয়েছিলেন তিনি! যেতে পারেননি কারণ তাঁর পিএইচডি গাইড তাঁর সেসব কাগজপত্রে সই করতে রাজি হননি। গাইডের অনুমতি ছাড়া এই পদক্ষেপ নেয়ার উপায় ছিল না তাঁর। তিনি ইন্দোরের দেবী অহিল্যা বিশ্ববিদ্যালয়ে পদার্থবিদ্যা নিয়ে স্নাতকোত্তর পর্যায় পাশ করেছিলেন এবং সেখানেই মেটিরিয়াল সায়েন্স নিয়ে গবেষণা করেছিলেন। কিন্তু যখন তিনি এই সুযোগটি পেয়েছিলেন তখন কলকাতার ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ সায়েন্স এডুকেশন অ্যান্ড রিসার্চ (আইআইএসইআর)–এ কাউন্সিল অফ সায়েন্টিফিক অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল রিসার্চের ওপর গবেষণা করছিলেন। তঁর এক সিনিয়র বেলজিয়ামে গবেষণা করছিলেন। তার রিসার্চ হেড রাইসাকে তাঁদের গবেষণায় যোগদান করার সুযোগ দিয়েছিলেন। কিন্তু কলকাতায় তাঁর রিসার্চ গাইড যখন অনুমতি দিলেন না, তিনি হতাশ হয়ে কলকাতা থেকে ফের ইন্দোরে চলে আসেন। এদিকে তাঁর ভাইয়ের স্ত্রীরা ছোট ছোট বাচ্চাদের রেখে পালিয়ে গেলে তাঁর কাছে দেখভালের ভার পড়ে। তখনই তাঁকে তাঁর স্বপ্ন ভুলে কজে নেমে পড়তে হয়। কিন্তু কারা তাঁকে চাকরি দেবে? রাইসার মতে, গোটা দেশ যখন ভাবে যে মুসলিমদের থেকেই করোনা ভাইরাস ছড়িয়েছে, তখন তাঁর নাম শুনে তাঁকে কে চাকরি দেবে? তাই তাঁকে নিজের বাবার পেশাতেই চলে আসতে হয়। ফল বিক্রি করা। তাঁর কাছে বেসরকারি কোনও সংস্থায় কাজ খোঁজার চেয়ে ফল বিক্রি করাই ভাল। কিন্তু তাতেও যদি বাধা পড়ে লকডাউনের জন্য। তবে পরিবারকে দু’বেলা কী খাওয়াবেন তিনি!

সূত্র- আজকাল

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Harun Rashid

২০২০-০৭-২৯ ১৮:০৫:০৩

লক্ষ লক্ষ ইন্ডিয়ান মুসলমানদের এক-ই অবস্থা । সাম্প্রদায়িকতার কশাঘাতে জর্জরিত ওরা ।

nazrul

২০২০-০৭-২৭ ২০:১৪:৩৮

ভারতীয় হিন্দুরা কক্ষনো মুসলমানদের ভাল চায় আর হতে দেয় না আরা আল্লাহ্‌র অভিশপ্ত সম্প্রদায় , ওরা ধবংস হউক নিপাত যাক । কাশ্মিরে মুসলমানদের উপর কি জুলুম নির্যাতন কেরছে !!

Mohammad Ala uddin A

২০২০-০৭-২৭ ১৯:০৩:৩৩

Really very sad. As a human being we should fell shame. Peoples fleeings are dead.I hope bright and prosperity in your life.Best regards Azad

Amir Hossain

২০২০-০৭-২৭ ১৮:১০:১৪

If you search then You will find thousand thousand Risha all over the India because of BJP & NARANDRA MODI , RSS

Protik Hasanat

২০২০-০৭-২৭ ১৮:০০:৩৪

এই আজব দেশ নিয়ে অনেক কিছু বলা আছে, অনেক কিছু দেখার আছে, আছে অনেক কিছু শেখার! তবে তারাই শুধু দেখতে পায় না যারা সাম্প্রদায়িক আর দলীয় ছানি চোখ দিয়ে দেখে। রাইসা, তোমার প্রতিভার মুল্যায়ন আজ যারা করল না তারা বিবেক বর্জিত। প্রতিভা হচ্ছে সুর্জেয়র আলোর মত তাকে কে আটকাবে!!

এ কে এম মহীউদ্দীন

২০২০-০৭-২৭ ১৭:৪১:৩৯

বাংলাদেশের কিছু শিক্ষিত ও প্রতিষ্ঠিত মানুষরা কি এই খবর থেকে কিছু শিখবে?

RAZU

২০২০-০৭-২৭ ১৬:৪৩:৫৩

রাইশো তোমার শিক্ষা বিফলে যাবে না, তুমি একদিন এ শিক্ষা নিয়েই প্রতিষ্ঠিত হতে পারেব। ইনশোআল্লাহ। তবে তুমি ভেঙ্গে পরবে না। আল্লাহর উপর বিশ্বাস রাখবে অব্শ্যই আল্লাহ তোমার এবং তোমার পরিবারের হেফাজত করবে।

Shafiur Rahman

২০২০-০৭-২৭ ০৩:১৯:৩৮

Bad luck. Can I help her for the study? Best regards , Shafiur Rahman, Tokyo.

Omar Hasan

২০২০-০৭-২৭ ০২:০২:১৪

This is great India

Md Mohsin

২০২০-০৭-২৭ ০১:১৫:৫৭

A ek ajob desh varot!!

Anowar

২০২০-০৭-২৭ ১৩:২৫:৫৯

This is called secular country.

Mohammed Faiz Ahmed

২০২০-০৭-২৭ ১২:৫৫:৫২

This is how talent dies. If we want to save the world, we have to give space to the development of talent.

মো: রফিকুল ইসলাম

২০২০-০৭-২৭ ১২:৫৪:২০

রাইশো তোমার শিক্ষা বিফলে যাবে না, তুমি একদিন এ শিক্ষা নিয়েই প্রতিষ্ঠিত হতে পারেব। ইনশোআল্লাহ। তবে তুমি ভেঙ্গে পরবে না। আল্লাহর উপর বিশ্বাস রাখবে অব্শ্যই আল্লাহ তোমার এবং তোমার পরিবারের হেফাজত করবে।

উবায়দুল্লাহ

২০২০-০৭-২৬ ২৩:৪১:৩৭

রাইসার অপরাধ তাইলে মুসলমান হওয়।

আপনার মতামত দিন

অনলাইন অন্যান্য খবর

বেসরকারী প্রতিষ্ঠান থেকে সনদ

৩২ যাত্রীকে রেখে গেলো সৌদি এয়ারলাইন্স

২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

নীলা হত্যা

৭ দিনের রিমান্ডে প্রধান আসামী মিজান

২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

মানবজমিনকে ড. কামাল

কাউন্সিল করার তারা কে?

২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০



অনলাইন সর্বাধিক পঠিত