বিজেপির চাপে ‘কথিত বাংলাদেশি’দের বিরুদ্ধে ব্যাঙ্গালুরুতে ধরপাকড় অভিযান

এক্সক্লুসিভ

মানবজমিন ডেস্ক | ৭ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার
ভারতের ব্যাঙ্গালুরুতে ‘অবৈধ বাংলাদেশি’দের গ্রেপ্তার ও আটক করতে অভিযান চালাচ্ছে নিরাপত্তা বাহিনী। কর্ণাটকের বিজেপি সরকারের চাপে এই অভিযান শুরু করা হয়েছে বলে জানিয়েছে স্থানীয় গণমাধ্যম। তবে এই অভিযানে গ্রেপ্তার বা আটক হওয়া ব্যক্তিদের জন্য কোনো কার্যকর আটককেন্দ্র নেই শহরটিতে। এমতাবস্থায়, আটক করা ব্যক্তিদের দেশে ফেরত পাঠানোর আগে বন্দি রাখার ব্যবস্থা করতে মঙ্গলবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে নির্দেশ দিয়েছে কর্ণাটকের হাইকোর্ট। গত আগস্টে আটক করা দুই অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসীর করা এক জামিন আবেদনের শুনানিতে এমন নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট বিচারক কে এন ফানেন্দ্র।         

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ব্যাঙ্গালুরুতে অবৈধ বাংলাদেশি আটক অভিযান রাজনৈতিক ইস্যুতে পরিণত হয়েছে। সৃষ্টি হয়েছে বিভ্রান্তিও। গত জুলাই মাসে রাজ্যটিতে ক্ষমতায় আসে বিজেপি সরকার। এরপর থেকেই এই অভিযান শুরু হয়।
কর্ণাটকের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বাসবরাজ বোম্মাই ক্ষমতায় এসেই জানান দেন, রাজ্যের নাগরিকদের তালিকা করা হবে। আসামের দৃষ্টান্ত অনুসরণ করে এনআরসি তালিকা করা হবে। এ ছাড়া, ব্যাঙ্গালুরুর পুলিশ কমিশনার ভাস্কর রাও সন্দেহভাজন অভিবাসীদের আশ্রয় না দিতে শহরবাসীকে সতর্ক করেছেন।

রাজ্য সরকার থেকে মদত পেয়ে ২৫শে অক্টোবর ব্যাঙ্গালুরুর পূর্ব ও দক্ষিণ-পূর্ব অংশ থেকে ৬০ জন অভিযুক্ত অবৈধ বাংলাদেশিকে আটক করেছে পুলিশ। ওই অঞ্চলেই শহরের বেশির ভাগ বাংলাদেশি অভিবাসীরা বাস করেন। আটক করা ব্যক্তিদের মধ্যে ২৪ জন নারী ও ১৬ শিশু রয়েছে। তাদের সকলের বিরুদ্ধে ‘ফরেনার্স অ্যাক্ট ১৯৪৬’ ও আইপিসি আইনের ৩৭০ ধারায় পাচারের অভিযোগ এনে মামলা করেছে পুলিশ।
সূত্রের বরাত দিয়ে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানিয়েছে, রাজ্য সরকারের চাপের মুখেই এই অভিযান শুরু করেছে পুলিশ। এই অভিযানের মাধ্যমে বিজেপি এটা প্রমাণ করতে চায় যে, তারা কথিত অবৈধ বাংলাদেশিদের সরানোর নীতি বাস্তবায়নে বদ্ধপরিকর।

বোম্মাই গত মাসে দেয়া এক বক্তব্যে বলেছেন, অন্যান্য দেশ থেকে ভারতে বহু মানুষ এসেছে, বিশেষ করে বাংলাদেশ থেকে। তারা ব্যাঙ্গালুরু ও কর্ণাটকের অন্যান্য শহরে বাস করছে। আমরা তাদের ব্যাপারে তথ্য সংগ্রহ করছি। এ বিষয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের সঙ্গে আলোচনা করা হবে।
কর্ণাটকের বিজেপি সরকার একাধিকবার রাজ্যটিতে বহু সংখ্যক অবৈধ বাংলাদেশি থাকার অভিযোগ করেছে। তবে চলতি সপ্তাহে হাইকোর্টে রাজ্য কর্তৃপক্ষের জমা দেয়া তথ্য অনুসারে, এমন  অভিবাসীর সংখ্যা মাত্র ৩৭৩। এর মধ্যে ১২৭ জন জামিনে মুক্ত রয়েছেন।

অভিবাসীদের দেশে ফেরত পাঠানোর দায়িত্বে পুলিশ
কর্ণাটকের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় অধীনস্থ  বিদেশি আঞ্চলিক নিবন্ধন কার্যালয়ের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গত কয়েক সপ্তাহে আটক অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসীদের নিজ দেশে ফেরত পাঠানোর সকল দায়িত্ব দেয়া হয়েছে ব্যাঙ্গালুরু পুলিশকে। কর্ণাটকের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও বিজেপি নেতা জাগদীশ সেত্তার বলেন, আমরা একাধিকবার এই বিষয়টি তুলে ধরেছি। এমনকি রাজ্যসভাতেও। রাজ্যে লাখ লাখ বাংলাদেশি এসেছে। কংগ্রেস ক্ষমতায় থাকার সময়ও আমরা এমনটা বলেছি। কেউ তখন বিষয়টিকে গুরুত্ব দেয়নি।

ব্যাঙ্গালুরু পুলিশ দাবি করেছে, অপরাধ কমাতেই অবৈধ অভিবাসীদের বিরুদ্ধে এই অভিযান চলছে। এক বিবৃতিতে তারা জানায়, শহরের অপরাধ হার কমানোর লক্ষ্যে অবৈধ অভিবাসীদের আটক করে দেশে ফেরত পাঠানোর অভিযান শুরু করেছে অপরাধ বিভাগ। ২৫শে অক্টোবর এক বিশেষ প্রচেষ্টায় ৬০ জনকে আটক করা হয়। তাদের ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে। আটক করা সকলে বাংলাদেশি।

পুলিশ কমিশনার রাও সমপ্রতি শহরবাসীকে কোনো অবৈধ অভিবাসীকে নিয়োগ দেয়া বা আশ্রয় দেয়ার ব্যাপারে সতর্ক করেছেন। বলেছেন, এই দেশে কাগজপত্র ছাড়া অবৈধ বাংলাদেশিরা অবস্থান করছে। তারা দেশবিরোধী কার্যক্রমে যুক্ত থাকতে পারে। যারা এমন ব্যক্তিদের সাহায্য করবে, আমরা তাদের বিরুদ্ধে অপরাধ ষড়যন্ত্রের মামলা চালু করবো।
এদিকে, ব্যাঙ্গালুরুতে কোনো সক্রিয় বন্দিশিবির না থাকার কারণে আটক করা সকল পুরুষ অভিবাসীকে কারাগারে রাখা হয়েছে। নারী ও শিশুদের রাখা হয়েছে রাষ্ট্রীয় খরচে পরিচালিত হোস্টেলে।


এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

শিক্ষার্থীদের অ্যাম্বুলেন্স সেবার নামে 'বাণিজ্য'

ভারতের আধিপত্য, বাংলাদেশের হতাশা

গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান নিয়ে সংবাদ প্রকাশে সতর্ক হতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের গণবিজ্ঞপ্তি

ঘুষের ঝুঁকি: দক্ষিণ এশিয়ায় শীর্ষে বাংলাদেশ

এয়ার শো’তে অংশ নিতে আমিরাত যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

টেস্ট ম্যাচ দেখতে প্রধানমন্ত্রীকে মোদির আমন্ত্রণ

রংপুর এক্সপ্রেসের বগি লাইনচ্যুত, আগুন

ঢাকায় আসছেন ড. কলিন ফিপস ডিওং

ভারতীয় স্বার্থ রক্ষায় ৬৫ দেশে সক্রিয় ২৬৫টি ভুয়া ওয়েবসাইট

রোববার শুরু হচ্ছে প্রাথমিক-ইবতেদায়ী সমাপনী পরীক্ষা

মশাকাণ্ড, স্ত্রীর হামলায় স্বামী হাসপাতালে, মামলা

ভারতের বিরুদ্ধে লড়তে কাশ্মীরিদের প্রশিক্ষণ দিতাম: পারভেজ মোশাররফ

বড়জয়ে শুভ সূচনা বাংলাদেশের, ম্যাচের নায়ক সৌম্য

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় জামিন চেয়ে খালেদার আপিল

পিতাকে হত্যার দায়ে ছেলের যাবজ্জীবন

এরদোগানের বিরোধিতা মার্কিন কংগ্রেস সদস্যদের