হার মানতে নারাজ

ষোলো আনা

ষোলো আনা ডেস্ক | ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ৫:০৫
প্রতীকী ছবি
আমেনা বেগম। বয়স মাত্র ৩৫। স্বামীর সঙ্গে যোগাযোগ নেই তার। শুধু জানেন ঢাকায় থাকেন। বিয়ে করেছেন আরেকটা। ২ বছর ধরে কোনো যোগাযোগ নেই। এক পুত্রসন্তানকে নিয়ে যুদ্ধ তার। ছেলে আমিনুর রহমান পড়ে পঞ্চম শ্রেণিতে।
হেরে যাওয়ার পাত্র নন তিনি। কঠোর পরিশ্রমী হত দরিদ্র আমেনা দেখছেন নতুন স্বপ্ন।

আমেনার বাড়ি নীলফামারী জেলার, ডোমারে। স্বামী চলে যাওয়ার পর থেকে থাকেন বাবার বাড়িতে। মিলেছে কোনোরকম মাথা গোঁজার ঠাঁই। এখানে তিনি পালন করেন গরু। তার তত্ত্ব্বাবধানে বড় হয় দু’টি গরু। পরম যত্নে গরু দু’টি ৮ মাস ধরে পালন করেছেন তিনি। বিক্রির জন্য দিয়ে দেন বড় ভাইয়ের হাতে। তার ভাই ধানের ব্যবসা করেন। তবে কোরবানি ঈদে বিভিন্ন এলাকা থেকে গরু নিয়ে ঢাকায় বিক্রি করেন।

বড় ভাই রাজধানীতে আনেন ১৮টি গরু। সব গরু বিক্রি হয়। আর তার বোনের গরু দু’টি বিক্রি করে মেলে প্রায় ২ লাখ টাকা। এতে লাভ হয় প্রায় ৮০ হাজার টাকা। এই টাকা দিয়ে আবার ২টি গরু কিনেছেন ৪৫ হাজার টাকা দিয়ে। বাকি টাকা সারা বছরের চলার রশদ। এছাড়াও তিনি করেন মৌসুমি বিভিন্ন কৃষি কাজ।


এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

৮৮ পাউন্ডের লুলুলেমন, নির্মাতারা নির্যাতিত

সম্রাটের মুখে কুশীলবদের নাম

বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে ফিফা প্রেসিডেন্ট

ফরিদপুরে মানবজমিন উধাও

সীমান্তে গোলাগুলি বিএসএফ সদস্যের নিহতের খবর ভারতীয় মিডিয়ায়

৩৬০০ মেগাওয়াটের বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করবে সৌদি কোম্পানি

গ্রামীণফোন-রবিতে প্রশাসক নিয়োগে মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন

বালিশকাণ্ডের তদন্তে দুদক

ব্রেক্সিট নিয়ে বৃটেন ইইউ সমঝোতা

মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

দক্ষিণ আফ্রিকায় গিয়েও নিরাপত্তাহীনতায়

ভুলে আসামি, ১৮ বছর পর খালাস পেলেন নাটোরের বাবলু শেখ

গ্রামীণফোনের কাছ থেকে ১২৫৮০ কোটি টাকা আদায়ের ওপর হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

‘ফিরোজের কাছে ফিরে আসবো’

শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী বলেই আবরার হত্যার পর দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে

পদযাত্রায় বাধা, আমরণ অনশনে নন-এমপিও শিক্ষকরা