দেশ এখন ষড়যন্ত্রের শিকার- পীরজাদা আমীর ফয়সল

বাংলারজমিন

ফরিদপুর প্রতিনিধি | ২১ জানুয়ারি ২০১৯, সোমবার
বিশ্ব ওলি খাজাবাবা ফরিদপুরী (ক.ছে. আ.) ছাহেবের আধ্যাতিক উত্তরসূরি জাকের পার্টির চেয়ারম্যান পীরজাদা আলহাজ খাজা মোস্তফা আমীর ফয়সল মুজাদ্দেদী বলেন, দেশ এখন ষড়যন্ত্রের শিকার, যড়যন্ত্র চলছে দেশের ভেতর ও বাইরে থেকে। দেশের স্বাধীনতা আজ হুমকির মধ্যে। এ সংকট কাটাতে হলে আমাদেরকে ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিহত করতে হবে। তিনি আরো বলেন, আসছে উপজেলা নির্বাচন। নির্বাচনে জাকের পার্টি পক্ষ হতে দেশের প্রতিটি উপজেলা পরিষদের জন্য প্রার্থী দেবে এবং এখন থেকে দেশের সব নির্বাচনে জাকের পার্টি অংশ নেবে।
মহাপবিত্র বিশ্ব উরস শরীফ ২০১৯ উপলক্ষে শনিবার (২০শে জানুয়ারি) বিকালে ফরিদপুর গোয়ালচামট পৌর কাম কমিউনিটি সেন্টারে জেলা জাকের পার্টি আয়োজিত পবিত্র মিশন ও ইসলামী জলসায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি এসময় আরো বলেন, জাকের পার্টি সর্বক্ষণ জনকল্যাণে কাজ করে। খুব শিগগিরই জাকের পার্টির নেতৃত্বে দেশে শান্তি ফিরে আসবে। আমরা যে ইসলাম নিয়ে এসেছি- থাকবে না মারামারি, কাটাকাটি, গুম, হত্যা, মিথ্যাচার। চারদিকে শান্তির সুভাষ বইবে।
জেলা জাকের পার্টির সভাপতি মশিউর রহমান জাদু মিয়ার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন, জাকের পার্টির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ড. খাজা সায়েম আমীর ফয়সল মুজাদ্দেদী। অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, ফরিদপুর জেলা জাকের পার্টির সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম কেসমত, প্রচার সম্পাদক ফকির আব্দুল মান্নান, জেলা ছাত্রফ্রন্টের সভাপতি নাজিম উদ্দীন খান প্রমুখ।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রীকে গ্রেপ্তার করেছে সিবিআই

ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী চিদাম্বরম গ্রেপ্তার

বিএনপি-জামায়াতের পৃষ্ঠপোষকতায় ২১শে আগস্ট হামলা

পরিচ্ছন্নতা অভিযানের পরের দিন আগের চিত্র

কাশ্মীর ইস্যু ভারতের অভ্যন্তরীণ

কাশ্মীরের যে এলাকা এখনো মুক্ত

সর্ষের মধ্যে ভূত থাকতে নেই: হাইকোর্ট

ফেসবুক গ্রুপ ‘গার্লস প্রায়োরিটি’র অ্যাডমিন কারাগারে

বিতর্ক দমাতে ফুটেজ চান মেয়র আরিফ

ঢাকা-দিল্লি সম্পর্ক ইতিবাচক পথেই রয়েছে: জয়শঙ্কর

কে হচ্ছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব ও মুখ্য সচিব

তারেকের সর্বোচ্চ শাস্তির জন্য আপিল করা হবে

ডেঙ্গু পরিস্থিতি: রোগী কমে-বাড়ে ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি ১৬২৬

এডিস মশার লার্ভা পাওয়ায় দুই সিটিতে ৩৯০০০০ টাকা জরিমানা

মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলে নতুন করে অস্থিরতা নিহত ১৯

৫ বছরে আমানত ৫ হাজার কোটি টাকা